1. newsshariful@gmail.com : Md shariful islam : Md shariful islam
  2. torikhossainbappy@gmail.com : Torik Hossain Bappy : Torik Hossain Bappy
বুধবার, ২৪ জুলাই ২০২৪, ১২:১৫ অপরাহ্ন
সর্বশেষ:
গ্রেপ্তারের ভয়ে পালিয়েছে মাকসুদ চেয়ারম্যান  অর্থ সম্পদে শুভ ও নার্গিসের ধারে কাছেও নেই বাকি তিন প্রার্থী বাড়ি গাড়ি কিছুই নেই নার্গিস মাকসুদের চাঁনমারী মসজিদের স্থান পরিদর্শনে সেলিম ওসমান সরকারী আশ্রয় কেন্দ্রে সেলিম ওসমান, শিশু ও বৃদ্ধদের জন্য উপহার নিয়ে যাবেন বৃহস্পতিবার আমাদের সংগ্রামে ভিডিও প্রকাশের পর নবীগঞ্জ গালর্স স্কুলের সেই শিক্ষিকার সমাধান দিলেন সেলিম ওসমান রূপগঞ্জে ইউপি চেয়ারম্যানের সঙ্গে এলাকাবাসীর মতবিনিময় নির্বাচনে প্রভাব বিস্তার করছে মাকসুদ পরিবার, ক্যাম্প নির্মাণে বাধা থানায় অভিযোগ বন্দরে তাসলিমা নামে এক গৃহবধুর উপর হামলা, বাড়িঘর ভাঙচুর সিদ্ধিরগঞ্জে ফিল্মি স্টাইলে সোয়া ৪ লাখ টাকা ছিনতাই; মামলা হয়নি এখনও

ভোটারদের আগ্রহের কেন্দ্রবিন্দুতে উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থী মুকুল

নিজস্ব প্রতিনিধি
  • সংবাদ প্রকাশের সময়ঃ শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল, ২০২৪
  • ৫২ জন্য পাঠক দেখেছে।

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ আগামী ৮ মে বন্দর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের ভোট গ্রহণের কথা রয়েছে। এ নির্বাচনকে সামনে রেখে উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে কয়েকজন প্রার্থী নির্বাচনের মাঠে নামলেও সবচেয়ে বেশী আলোচনায় রয়েছেন সাবেক দুই দুইবারের চেয়ারম্যান প্রার্থী আতাউর রহমান মুকুল।

এদিকে উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থী আতাউর রহমান মুকুল নির্বাচনের শেষ দিন পর্যন্ত মাঠে থাকার ঘোষণা দিয়ে প্রচারণা চালানোয় সমগ্র বন্দরজুড়ে বিষয়টি ব্যাপক সাড়া ফেলেছে এবং ভোটারদের আগ্রহের কেন্দ্রবিন্দুতে পরিণত হয়েছে। পাড়া, মহল্লা, দোকানপাট এবং জনাকীর্ণ জায়গায় জনগণের মাঝে আতাউর রহমান মুকুলকে নিয়ে বেশ কৌতুহল দেখা গেছে।

আতাউর রহমান মুকুলের বিষয়ে জানা গেছে, ‘তিনি যখন দুইবার চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করেছেন তখন গ্রামের স্কুলের মাদ্রাসা ও রাস্তাঘাটের উন্নয়ন অব্যাহত ছিল। তাই সাধারণ ভোটারদের চাওয়া আতাউর রহমান মুকুল পুনরায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হলে বন্দর উপজেলার উন্নয়নের চাকা আবার সচল হবে, স্কুল, মাদ্রাসা, প্রত্যন্ত গ্রামের রাস্তাঘাট উন্নয়নের ছোঁয়া পাবে । গত আড়াই মাস যাবৎ মদনপুর থেকে মোহনপুর পর্যন্ত অর্থাৎ সমগ্র বন্দর উপজেলায় চষে বেড়িয়েছেন। স্থানীয়দের আয়োজনে বন্দরের ৫টি ইউনিয়নেই বিপুল সংখ্যক উঠান বৈঠক, মতবিনিময় সভা, ও গণসংযোগ চালিয়ে ভোটারদের আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে পরিণত হয়ে ভোটারদের মন জয় করতে সক্ষম হয়েছেন।

বন্দরের বিভিন্ন প্রান্তের ভোটারদের সাথে কথা বললে তারা জানায়, ‘বিগত উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়ে কোন উন্নয়নমূলক কাজ করেনি। বিপদ আপদে তাদেরকে পাশে পাওয়া যায়নি। আশ্বাস ও প্রতিশ্রুতি দিলেও তারা তা বাস্তবায়ন করেনি। আর মুকুল ভাইয়ের কাছে যখনই যেই সমস্যার জন্য গিয়েছি তিনি তার সামর্থ্য অনুযায়ী চেষ্টা করে আমাদের পাশে দাঁড়িয়েছেন। এবার আতাউর রহমান মুকুল ভাইয়ের উপর আমরা আস্থা রাখতে চাই, এবং আশা করি তার মাধ্যমে আমাদের বন্দর উপজেলাবাসীর প্রত্যাশা ও আকাঙ্খার প্রতিফলন ঘটবে। উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আমরা বিগত সময়ে তেমন কোন প্রচারণা দেখতে পাইনি। মুকুল ভাই তিনি যেভাবে প্রচারণা চালিয়েছেন, ভোটারদের কাছে যেভাবে সময় দিয়েছেন এবং যেভাবে মসজিদ মাদ্রাসায় সহায়তা করেছেন, তা নজিরবিহীন। বন্দরে ইতিহাস সৃষ্টি করেছেন। মুকুল ভাই আমাদের ভোট পাবার মতো যোগ্য, দক্ষ ও প্রাণবন্ত ব্যক্তিত্ব। যিনি আমাদেরকে সম্মান ও মূল্যায়ণ করেছেন তিনিই আমাদের ভোট পাবার অধিকার রাখেন এবং আমরা এবার মুকুল ভাইকেই ভোট দিয়ে বিজয়ী করবো ইনশাআল্লাহ।

অনুগ্রহ করে আপনাদের ব্যক্তিগত সোশ্যাল মিডিয়া গুলিতে প্রকাশিত এই প্রতিবেদন টি শেয়ার করে আমাদের সাথেই থাকুন ধন্যবাদ।

এ জাতীয় আরও সংবাদ ক্যাটাগরি
  • ফজর
  • যোহর
  • আছর
  • মাগরিব
  • এশা
  • সূর্যোদয়
  • ৪:০০
  • ১২:০৮
  • ৪:৪৩
  • ৬:৫১
  • ৮:১৪
  • ৫:২২