বন্দরে আত্মহত্যার প্ররোচনা মামলায় কচি মেম্বার গ্রেপ্তার

লেখক: আবু সুফিয়ান
প্রকাশ: ২ years ago

বন্দরে ধর্ষণ মামলার ৪ দিন পর ধর্ষিতা যুবতী ধর্ষনের ভিডিও ভাইরালের ঘটনায় রাগে ও ক্ষোভে  রুপা (২২) নামে এক যুবতী গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেছে।

সোমবার ৬ জুন সকাল ১০ টায় বন্দর উপজেলার বালিয়াগাও এলাকায় এ ঘটনাটি ঘটে।

এদিকে, রুপার আত্নহত্যার প্ররোচনার ঘটনায় কলাগাছিয়া ইউনিয়ন পরিষদের ১নং ওয়ার্ডের মেম্বার আব্দুল মোমেন কচিকে গ্রেপ্তার করে বন্দর থানা পুলিশ। যার ফলে এলাকায় চাঞ্চল্যকর সৃষ্টি হয়েছে।

আত্মহননকারি যুবতী রুপা একই এলাকার দিনমজুর রওশন জামিল ওরফে বিষু মিয়ার মেয়ে বলে জানা গেছে।

ধর্ষিতা আত্মহত্যার ঘটনার সংবাদ পেয়ে বন্দর থানা পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মহসিন ও মদনগঞ্জ ফাঁড়ী উপ-পরিদর্শক মহসিনসহ সঙ্গীয় ফোর্স দ্রুত ঘটনাস্থলে এসে বেলা ১২টায় লাশ উদ্ধার করে নারায়ণগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করেছে।

এ ব্যাপারে বন্দর থানায় আরো একটি মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

তথ্য সূত্রে জানা গেছে, গত ২ বছর ধরে বন্দর উপজেলার বালিয়াগাও এলাকার মৃত জামির খানের লম্পট ছেলে নুরুল আমিন একই এলাকার দিনমজুর রওশন জামিল ওরফে বিষু মিয়ার যুবতী মেয়ে রুপা সাথে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলে। ওই সম্র্পকের সূত্র ধরে মধ্যবয়সী লম্পট নুরুল আমিন বিভিন্ন সময়ে নিরিহ যুবতীকে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে একাধিকবার ধর্ষন করে। এর ধারাবাহিকতায় গত ২২মে সকাল পৌনে ১১টায় প্রতিদিনের মত ভূক্তভোগী যুবতি পিতা ও মাতা কাজে যাওয়ার সুবাদে ওই সময় লম্পট নুরুল আমিন ওই যুবতী বসত বাড়িতে প্রবেশ করে ইচ্ছার বিরুদ্ধে জোর পূর্বক ভাবে ধর্ষন করে। পরে ধর্ষিতা লম্পট মধ্যবয়সী ধর্ষক নুরুল আমিনকে বিয়ে করার কথা বললে ওই সময় লম্পট বিয়ে করতে অস্বিকার করে।

এ ঘটনায় ধর্ষিতার মা মর্জিনা বেগম বাদী হয়ে গত ২ জুন লম্পট নুরুল আমিনকে আসামী করে বন্দর থানায় ৫(৬)২২ নং নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে একটি মামলা দায়ের করে।

এ ব্যাপারে আত্মহননকারি যুবতী মা মর্জিনা বেগম ও এলাকাবাসী গনমাধ্যমকে জানান, আমি গৃহপরিচারিকা হিসেবে কাজ করি। আমার স্বামীও দিনমজুর। আমরা কাজের গেলে ওই সুযোগে লম্পট নুরুল আমিন আমার ঘরে আসে। পরে আমার মেয়েকে বিয়ে করার প্রলোভন দেখিয়ে বিভিন্ন সময়ে একাধিকার ধর্ষন করে। এ ব্যাপারে আমি বাদী হয়ে গত ৪ দিন পূর্বে লম্পট নুরুল আমিনকে আসামী করে বন্দর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা দায়ের করি। থানা মামলার করার জের ধরে এ ঘটনায় মধ্যবয়সী লম্পট ধর্ষক নুরুল আমিনের স্ত্রী শ্যামলী বেগম ও একই এলাকার তাওলাদ হোসেনের ছেলে ধর্ষকের ভাগ্নে ও স্থানীয় মসজিদের ইমাম ইব্রাহিম গত রোববার ধর্ষিতা যুবতী রুপা আক্তারের ধর্ষনের ভিডিও ভাইরাল করে।

এ ঘটনায় ধর্ষিতা যুবতী রুপা আক্তার ৬ জুন সোমবার সকাল ১০টায় নিজ ঘরের আঁড়ার সাথে ওড়না দিয়ে ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করে।

এ ব্যাপারে বন্দর থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মহসিন জানান, আত্নহত্যার প্ররোচনা মামলায় কলাগাছিয়া ইউনিয়ন পরিষদে ১নং ওয়ার্ডের মেম্বার কচিকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

  • বন্দরে আত্মহত্যার প্ররোচনা মামলায় কচি মেম্বার গ্রেপ্তার